Oneindia থেকে ব্রেকিং নিউজের আপডেট পেতে

সারাদিন ধরে চটজলটি নিউজ আপডেট পান

You can manage them any time in browser settings

ভারতীয় সেনাবাহিনীর অস্ত্রের ঘাটতি মানলেন জেটলি, দ্রুত মিটিয়ে ফেলার আশ্বাস

  • Posted By: Soumik
Subscribe to Oneindia News

ভারতের সশস্ত্র বাহিনী যে কোনও আকস্মিক ঘটনার মোকাবিলায় পুরোপুরি প্রস্তুত এবং অস্ত্র-শস্ত্রের ঘাটতিও দ্রুতই মিটিয়ে ফেলা হচ্ছে। শুক্রবার লোকসভায় এমনই আশ্বাস দিয়েছেন কেন্দ্রীয় প্রতিরক্ষামন্ত্রী অরুণ জেটলি। গত সপ্তাহেই ভারতীয় সেনাবাহিনীর কাছে প্রয়োজনীয় অস্ত্র-শস্ত্রের অভাব রয়েছে বলে ক্যাগ রিপোর্টে বলা হয়েছে।

[আরও পড়ুন: ডোকলাম নিয়ে কেন উত্তাপ বাড়ছে ভারত-চিনের মধ্যে, জেনে নিন সমস্যার ইতিবৃত্ত]

ভারতীয় সেনাবাহিনীর অস্ত্রের ঘাটতি মানলেন জেটলি, দ্রুত মিটিয়ে ফেলার আশ্বাস

গত সপ্তাহেই সেনাবাহিনীর হাতে থাকা অস্ত্র-শস্ত্র নিয়ে উদ্বেগ প্রকাশ করা হয়েছে ক্যাগ রিপোর্টে। রিপোর্টে বলা হয়েছে, ভারতীয় সেনাবাহিনীর হাতে যা অস্ত্র-শস্ত্র রয়েছে তার ৫৫ শতাংশই আপৎকালীন পরিস্থিতিতে খুব বেশিদিন চলবে না। বাকি ৪৫ শতাংশ যা রয়েছে বড় যুদ্ধের ক্ষেত্রে খুব বেশি হলে তা ১০দিন পর্যন্ত চলতে পারে।

শুক্রবার লোকসভায় কেন্দ্রীয় প্রতিরক্ষামন্ত্রী জানিয়েছেন, ক্যাগ রিপোর্টে একটা নির্দিষ্ট সময়ে অস্ত্র-শস্ত্রের ঘাটতির কথা বলা হয়েছে, কিন্তু সেই পরিস্থিতি এখন আর নেই। সেই ঘাটতি অনেকটাই মিটিয়ে ফেলা সম্ভব হয়েছে, তবে এখনও যেটুকু ঘাটতি রয়ে গিয়েছে, তাও দ্রুততার সঙ্গে মিটিয়ে ফেলা হবে বলে জানিয়েছেন জেটলি। এমনকী পরিস্থিতির কথা মাথায় রেখে সেনার উপপ্রধানকে ৪৬ ধরনের অস্ত্র-শস্ত্র আপৎকালীন ভিত্তিতে কেনার অধিকার দেওয়া হয়েছে বলেও জানিয়েছন তিনি।

গত বছর উরিতে জঙ্গি হামলার পরই ২০ হাজার কোটি টাকার অস্ত্র-শস্ত্র কেনা হয়েছে। এখন চিনের সঙ্গে ভারতের সম্পর্ক যে জায়গায় দাঁড়িয়ে তাতে অস্ত্র-শস্ত্রের ঘাটতি থাকলে চলবে না বলে সংসদে সরব হয়েছিলেন বিরোধীরা। ক্যাগ রিপোর্ট নিয়ে এদিন প্রশ্নের জবাবে শুক্রবার প্রতিরক্ষা মন্ত্রকের রাষ্ট্রমন্ত্রী সুভাষ বামরে লোকসভাকে আশ্বস্ত করে জানিয়েছেন, দেশের কোনও অস্ত্র কারখানাই বন্ধ করা হবে না।

[আরও পড়ুন:সন্ত্রাসবাদীদের প্রধান টার্গেটের মধ্যে প্রথম তিনে ভারত, সামনে এল চাঞ্চল্যকর ]

English summary
Armed forces fully equipped to counter any contingencies, assures Arun Jaitley. Any shortages would be addressed, says Jaitley.
Please Wait while comments are loading...